তথ্য অধিদফতর (পিআইডি) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ৭ নভেম্বর ২০১৮

তথ্যবিবরণী - 7/11/2018

তথ্যবিবরণী                                                                                নম্বর :  ৩০৭২
একনেকে ৩০ হাজার ২৩৪ কোটি টাকার ২৮টি প্রকল্প অনুমোদিত
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) :
নেত্রকোনায় স্থাপন করা হচ্ছে শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয়। আজ একনেকে অনুমোদিত প্রকল্পটি বাস্তবায়নে ব্যয় হবে ২ হাজার ৬৩৭ কোটি ৪০ লাখ টাকা। প্রকল্পটির কার্যক্রম ২০১৯ সালের জানুয়ারি থেকে শুরু হয়ে ২০২১ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে সম্পন্ন হবে। এছাড়া আজ অনুমোদিত হয়েছে সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর সম্প্রসারণ (প্রথম পর্যায়) প্রকল্প। এটি বাস্তবায়নে ব্যয় ধরা হয়েছে ২ হাজার ৩০৯ কোটি ৭৯ লাখ টাকা। ২০১৯ সালের জানুয়ারি থেকে ২০২১ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে এটি বাস্তবায়ন করবে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক)। জয়িতা ফাউন্ডশনের সক্ষমতা বিনির্মাণ নামের প্রকল্পটি বাস্তবায়নে ব্যয় ধরা হয়েছে ২৬২ কোটি ৯৯ লাখ টাকা। এটি বাস্তবায়নের মাধ্যমে পর্যায়ক্রমে ২৮ হাজারের অধিক নারীকে সম্পৃক্ত করে নারী উদ্যোক্তাদের বহুবিধ ব্যবসা উদ্যোগের সক্ষমতা বাড়ানো হবে। ২০১৯ সালের জানুয়ারি থেকে ২০২৩ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করবে জয়িতা ফাউন্ডেশন। এছাড়া সংশোধন করা হচ্ছে শহীদ কামরুজ্জামান টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট স্থাপন, মান্দা নামের প্রকল্পটি। এক্ষেত্রে মূল ব্যয় ৭৪ কোটি ৬২ লাখ থেকে ৮২ কোটি ১৪ লাখ টাকা বাড়িয়ে মোট ব্যয় ধরা হচ্ছে ১৫৬ কোটি ৭৭ লাখ টাকা। মেয়াদও বাড়ছে এক বছর অর্থাৎ ২০২০ সালের জুন পর্যন্ত। দ্বিতীয়বারের মতো সংশোধন করা হচ্ছে ভোলা টেক্সটাইল ইনস্টিটিউট প্রকল্পটি। প্রথম সংশোধিত ব্যয় ৭২ কোটি ৯২ লাখ থেকে ৩২ কোটি ৭৭ লাখ টাকা বাড়িয়ে এখন মোট ব্যয় ধরা হচ্ছে ১০৫ কোটি ৬৯ লাখ টাকা। মেয়াদ বাড়ছে ২০২০ সালের জুন পর্যন্ত এক বছর। 
পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল আজ ঢাকায় এনইসি সম্মেলন কক্ষে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক) এর বৈঠক শেষে ব্রিফিংকালে সাংবাদিকদেরকে এসব কথা বলেন।
পরিকল্পনামন্ত্রী আরো বলেন, গত রবিবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক) অনুমোদন দিয়েছে ৩৯টি উন্নয়ন প্রকল্প। দু’দিন পরই আজ বুধবার একনেকে অনুমোদিত হয়েছে আরো ২৮টি উন্নয়ন প্রকল্প। আজকের একনেকে অনুমোদন হওয়া অন্য প্রকল্পগুলো হচ্ছে: চট্টগ্রাম মহানগরীর পয়ঃনিষ্কাশন ব্যবস্থা স্থাপন (প্রথম পর্যায়) প্রকল্প, এছাড়া নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনে কঠিন বর্জ্য সংগ্রহ এবং অপসারণ ব্যবস্থাপনা, বহাদ্দারহাট বাড়ইপাড়া থেকে কর্ণফুলি নদী পর্যন্ত খাল খনন, চা বাগান কর্মীদের জন্য নিরাপদ সুপেয় পানি সরবরাহ ও স্যানিটেশন, উপজেলা ও ইউনিয়ন ভূমি অফিস নির্মাণ (ষষ্ঠ পর্ব), বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ ভবন নির্মাণ, ১১টি আধুনিক ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্থাপন, মাদারীপুরে সরকারি অফিসগুলোর জন্য বহুতল ভবন নির্মাণ, নির্বাচিত ৯টি সরকারি কলেজের উন্নয়ন, গোপালগঞ্জের শেখ রাসেল উচ্চ বিদ্যালয় ও ঢাকা সূত্রাপুরের শেরেবাংলা বালিকা মহাবিদ্যালয়ের অবকাঠামো উন্নয়ন, চট্টগ্রাম-খুলনা-রাজশাহী এবং রংপুর বিভাগে একটি করে ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ স্থাপন, র‌্যাব ফোর্সের আভিযানিক সক্ষমতা বৃদ্ধিকরণ, ডিপিডিসির আওতাধীন এলাকায় বিদ্যুৎ বিতরণ ব্যবস্থা উন্নয়ন, সোনাগাজী ৫০ মেগাওয়াট সৌরবিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণ, বীজ প্রত্যয়ন কার্যক্রম জোরদারকরণ, নৌ-পরিবহন মন্ত্রণালয়ের আনুষঙ্গিক সুবিধাদিসহ বিশেষ ধরণের পন্টুন নির্মাণ ও স্থাপন, বৃহত্তর রাজশাহী জেলার গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়ন (রাজশাহী, নওগাঁ, নাটোর ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ, বৃহত্তর নোয়াখালী (নোয়াখালী, ফেনী ও লক্ষ্মীপুর জেলা) পল্লী অবকাঠামো উন্নয়ন, প্রাণিসম্পদ ও ডেইরি উন্নয়ন, বাঙ্গালী-করতোয়া-ফুলজোর-হুরাসাগর নদী সিস্টেম ড্রেজিং/ পুনঃখনন ও তীর সংরক্ষণ, বৃহত্তর নোয়াখালী; নোয়াখালী, ফেনী ও লক্ষ্মীপুর জেলা) পল্লী অবকাঠামো উন্নয়ন এবং ইমারজেন্সি মাল্টি-সেক্টর রোহিঙ্গা ক্রাইসিস রেসপনস প্রকল্প।
আজকের উপস্থাপিত ২৮টি (নতুন ও সংশোধিত) প্রকল্পের মোট ব্যয় ৩০ হাজার ২৩৪ কোটি ৬০ লাখ টাকা। এর মধ্যে জিওবি ২৪ হাজার ৮৫৪ কোটি ১৭ লাখ টাকা, সংস্থার নিজস্ব তহবিল ৫৩৯ কোটি ১৭ লাখ টাকা এবং বৈদেশিক প্রকল্প সাহায্য ৪ হাজার ৫০৬ কোটি ৭৪ লাখ টাকা।
#
তৌহিদুল/সেলিম/সঞ্জীব/সেলিমুজ্জামান/২০১৮/১৯৩০ ঘণ্টা 
তথ্যবিবরণী                                                                                          নম্বর : ৩০৭১
 
বিডিএস ভর্তি পরীক্ষা সম্পর্কিত সরকারি নির্দেশাবলি
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) : 
আগামী ৯ নভেম্বর শুক্রবার সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিতব্য ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের বিডিএস ভর্তি পরীক্ষা সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন হওয়ার লক্ষ্যে সরকার নি¤œরূপ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে :
বিডিএস ভর্তি পরীক্ষার দিন পরীক্ষার্থী ও অভিভাবকদেরকে সকাল ৯টা ৩০ মিনিটের (সাড়ে নয়টার) মধ্যে অবশ্যই পরীক্ষা কেন্দ্রে  উপস্থিত থাকতে হবে। পরীক্ষা কেন্দ্রে সকল ধরনের ইলেকট্রনিক ডিভাইস (মোবাইল ফোন, ক্যালকুলেটর, ঘড়ি, হেডফোন ও অন্যান্য ইলেকট্রনিক ডিভাইস) পরীক্ষা কেন্দ্রে আনা, বহন ও ব্যবহার সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ। 
বিডিএস ভর্তি পরীক্ষার দিন পরীক্ষা কেন্দ্রসমূহের নিকটবর্তী স্থানসমূহে সকল ধরনের ফটোকপি মেশিন ও কোচিং সেন্টার বন্ধ রাখতে হবে।
সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রশ্ন ফাঁসের কোনো ধরনের গুজবে কান না দেওয়ার জন্য পরীক্ষার্থী ও অভিভাবকদেরকে অনুরোধ করা হলো। পরীক্ষার দিন ঢাকা মহানগর এলাকায় যানজট এড়ানোর লক্ষ্যে মেট্রোপলিটন পুলিশের নির্দেশিত রুটে চলাচল করার জন্য অনুরোধ করা হলো।
#
 
মুকুল/মাহমুদ/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৮/১৯২০ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                নম্বর :  ৩০৭০
 
বিশেষায়িত ক্যান্সার হাসপাতাল নির্মাণের উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে
                                                      -- স¦াস্থ্যমন্ত্রী
 
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) :
 
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণা ও নির্দেশনা অনুযায়ী দেশে উন্নত চিকিৎসা নিশ্চিত করতে সরকার ঢাকায় অত্যাধুনিক বিশেষায়িত ক্যান্সার হাসপাতাল নির্মাণের উদ্যোগ নিচ্ছে জানিয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, এই হাসপাতাল চালু হলে দেশের সাধারণ মানুষ দেশে বসেই সাশ্রয়ী মূল্যে বিশ্বমানের চিকিৎসা পাবে।  ক্যান্সার রোগীদের উন্নত চিকিৎসার জন্য  আর বিদেশে যেতে হবে না। এ সময়ে তিনি এই হাসপাতালের নাম ‘বঙ্গবন্ধু সুপার স্পেশালাইজড ক্যান্সার হাসপাতাল’ রাখার প্রস্তাব করেন।
 
আজ সচিবালয়ে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত এক হাজার শয্যাবিশিষ্ট অত্যাধুনিক বিশেষায়িত হাসপাতাল স্থাপন সংক্রান্ত সভায় সভাপতিত্বকালে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এসব কথা বলেন।
 
সভায়  চীনা সরকারের অর্থায়নে এই প্রকল্পের প্রস্তাবিত নকশা প্রদর্শনীসহ এ হাসপাতালের বিভিন্ন দিক নিয়ে আলোচনা করা হয়। উল্লেখ্য, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণা ও নির্দেশনা অনুযায়ী দেশে একটি বিশ্বমানের ক্যান্সার হাসপাতাল করার লক্ষ্যে ইতিমধ্যে বাংলাদেশ ও চীন সরকারের মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়।
 
স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, অত্যাধুনিক এই বিশেষায়িত হাসপাতালে দুরারোগ্য ক্যান্সার রোগীদের জন্য উন্নত চিকিৎসার সুবিধা থাকবে। গত দশ বছরে সরকার অগ্রাধিকার ভিত্তিতে দেশে বেশ কয়েকটি বিশেষায়িত হাসপাতাল চালু করেছে। সম্প্রতি রাজধানীতে উদ্বোধন হওয়া ‘শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউট এবং হাসপাতাল’, ‘গ্যাস্ট্রোলিভার হাসপাতাল’, গাজীপুরের শেখ ফজিলাতুন্নেসা মেমোরিয়াল কেপিজে বিশেষায়িত হাসপাতাল, গোপালগঞ্জের শেখ ফজিলাতুন্নেসা চক্ষু হাসপাতাল, রাজধানীর নাক, কান ও গলা ইনস্টিটিউট, মুগদা হাসপাতালসহ বেশ কয়েকটি নতুন হাসপাতালের নাম মন্ত্রী এ সময় উল্লেখ করেন। মোহাম্মদ নাসিম বলেন, এছাড়াও পুরানো কয়েকটি হাসপাতালের সংস্কার ও সম্প্রসারণও করেছে সরকার। ফলে দেশের জনগণ এখন দেশেই অত্যাধুনিক চিকিৎসা পাচ্ছে এবং চিকিৎসার জন্য মানুষের বিদেশমুখী হওয়ার প্রবণতা কমেছে। 
 
এ সময় স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক,  আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য সম্পাদক আব্দুস সাত্তারসহ মন্ত্রণালয়ের  ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ এবং চীনা প্রতিনিধিদলের সদস্য উপস্থিত ছিলেন।
 
#
 
পরীক্ষিৎ/মাহমুদ/পারভেজ/সেলিমুজ্জামান/২০১৮/১৮৩০ ঘণ্টা 
তথ্যবিবরণী                                                                                          নম্বর : ৩০৬৯
 
লাল জমিন এর ১৭৪তম প্রদর্শনী ৮ নভেম্বর
 
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) :
সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অনুদানে শূন্যন রেপার্টরি থিয়েটারের প্রযোজনায় মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক নাটক ‘লাল জমিন’ এর ১৭৪তম প্রদর্শনী আগামীকাল ৮ নভেম্বর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টায় রাজধানীর বেইলী রোডস্থ বাংলাদেশ মহিলা সমিতির নীলিমা ইব্রাহীম মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হবে। 
‘লাল জমিন’ মুক্তিযুদ্ধ ও যুদ্ধোত্তর বাংলাদেশে এক নারীর সংগ্রামী জীবনের শিল্পীত প্রয়াস। মহান মুক্তিযুদ্ধে নারীর অংশগ্রহণ, অবদান ও ত্যাগ নাটকটির ক্যানভাসে সুন্দরভাবে ফুটে ওঠেছে। ‘লাল জমিন’ রচনা করেছেন মান্নান হীরা, নির্দেশনা দিয়েছেন সুদীপ চক্রবর্তী এবং অভিনয় করেছেন বিশিষ্ট অভিনেত্রী মোমেনা চৌধুরী। 
উল্লেখ্য, গত অর্থবছরে সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয় লাল জমিনের ৪৪টি প্রদর্শনীর জন্য অনুদান প্রদান করেছিল। এর ধারাবাহিকতায় চলতি অর্থবছরেও লাল জমিনের পাশে দাঁড়িয়েছে মন্ত্রণালয়। এ অর্থবছরে সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অনুদানে দেশের বিভিন্ন জেলা, উপজেলা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে লাল জমিনের ৩০টি প্রদর্শনী মঞ্চস্থ হতে যাচ্ছে। নাটকটি মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে তরুণ প্রজন্মের মাঝে ছড়িয়ে দিতে কার্যকর ভূমিকা রাখবে বলে আশা করা যাচ্ছে। 
#
 
ফয়সল/মাহমুদ/রফিকুল/জয়নুল/২০১৮/১৮৪০ঘণ্টা  
তথ্যবিবরণী                                                                                          নম্বর : ৩০৬৮
 
শ্রমিক কল্যাণ তহবিলে প্রথমবারের মতো অর্থ দিল আমান বাংলাদেশ লিঃ
 
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) :
সুইং থ্রেড উৎপাদনকারী জার্মান কোম্পানি আমান (অসধহহ) বাংলাদেশ লিমিটেড প্রথমবারের মতো শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের অধীন বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে কোম্পানির গত এক বছরের লভ্যাংশের নিদিষ্ট অর্থ প্রদান করেছে।
আজ সচিবালয়ে শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মোঃ মুজিবুল হকের হাতে আমান বাংলাদেশ লিঃ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক রোকনুজ্জামান ৬ লাখ ২৩ হাজার ২শ’ ১২ টাকার চেক হস্তান্তর করেন।
     বাংলাদেশ শ্রম আইন অনুযায়ী কোম্পানির নিট লাভের এক দশমাংশ বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে জমা দেয়ার বিধান রয়েছে। এ পর্যন্ত দেশি, বিদেশি এবং বহুজাতিক মিলে ১২২ টি কোম্পানি এ তহবিলে অর্থ প্রদান করেছে। এ তহবিলে আজ পর্যন্ত জমার পরিমাণ প্রায় ৩শ’ বারো কোটি টাকা।
শ্রম প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রাতিষ্ঠানিক-অপ্রাতিষ্ঠানিক খাতে নিয়োজিত শ্রমিকদের এ তহবিল থেকে সহায়তা প্রদান করা হচ্ছে। প্রাতিষ্ঠানিক-অপ্রাতিষ্ঠানিক খাতের কোন শ্রমিক দুর্ঘটনায় মৃত্যুবরণ করলে ২ লাখ, দুরারোগ্য ব্যাধির চিকিৎসায় ১ লাখ এবং শ্রমিকের সন্তানের সরকারি প্রকৌশল, টেক্সটাইল ও কৃষি বিশবিদ্যালয় এবং মেডিকেল কলেজে লেখাপড়ার জন্য ৩ লাখ টাকা এবং সরকারি বিশবিদ্যালয় লেখাপড়ার জন্য ৪০ হাজার টাকা শিক্ষা সহায়তায় প্রদান করা হচ্ছে।
একই অনুষ্ঠানে শ্রম প্রতিমন্ত্রী সম্প্রতি একটি জাতীয় দৈনিকে ‘অর্থাভাবে ঢাবিতে ভর্তি হতে পারছে না কাঠশ্রমিক শুভ’ প্রকাশিত শিরোনামের মোধাবী ছাত্র সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ার শ্যামপুর গ্রামের শ্যামল কুমারের ছেলে শুভ কুমারের হাতে শ্রমিক কল্যাণ তহবিল হতে শিক্ষা সহায়তা হিসেবে ৩০ হাজার টাকার চেক তুলে দেন।
      চেক প্রদান অনুষ্ঠানে মন্ত্রণালয়ের সচিব আফরোজা খান, শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক ড. আনিসুল আউয়াল, আমান বাংলাদেশ লিমিটেডের পরিচালক (অর্থ) এবং কোম্পানি সচিব আমজাদ হোসেন এবং ব্যবস্থাপক (মানব সম্পদ) মোঃ মেহানাজ উদ্দিন রূপম উপস্থিত ছিলেন।
#
আকতারুল/মাহমুদ/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৮/১৮৩০ঘণ্টা  
তথ্যবিবরণী                                                                                          নম্বর : ৩০৬৭
 
হাওড় এলাকার হতদরিদ্র নারীদের কর্মসংস্থানে নতুন কর্মসূচি 
                             --- মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী 
 
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) :
মহিলা ও শিশু বিষয়ক  প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি বলেছেন, হাওড় এলাকার হতদরিদ্র নারীদের কর্মসংস্থান সৃষ্টি করার জন্য ‘হাওড় এলাকার সুবিধাবঞ্চিত নারীর অর্থনৈতিক ও সামাজিক ক্ষমতায়নের জন্য আয় ও কর্মসংস্থান কর্মসূচি’ গ্রহণ করেছে সরকার। হাওড় এলাকার সুবিধাবঞ্চিত নারী গোষ্ঠীর  আয় ও কর্মসংস্থান  বৃদ্ধির মাধ্যমে  তাদের জীবনমান  উন্নয়নের জন্য  ভাসমান বীজতলা  ও বিষমুক্ত সবজি চাষ প্রশিক্ষণ, হাঁস প্রতিপালন প্রদান করে নারী-পুরুষ বৈষম্যহীন পরিবেশ সৃষ্টির মাধ্যমে নারীর  অর্থনৈতিক  ও সামাজিক ক্ষমতায়নে এই কর্মসূচি ভূমিকা রাখবে। 
প্রতিমন্ত্রী আজ রাজধানীর মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মিলনায়তনে ‘হাওড় এলাকার সুবিধাবঞ্চিত নারীর অর্থনৈতিক ও সামাজিক ক্ষমতায়নের জন্য আয় ও কর্মসংস্থান কর্মসূচির’ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন। মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক কাজী রওশন আক্তারের সভাপতিত্বে  অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব নাছিমা বেগম  এনডিসি, মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের  অতিরিক্ত সচিব  মাহমুদা শারমিন বেনু , মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের পরিচালক মোঃ আতাউর রহমান, কর্মসূচি পরিচালক জান্নাতুল ফেরদৌস প্রমুখ। 
প্রতিমন্ত্রী বলেন, সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনী জোরদার করতে হাওড় এলাকার সুবিধাবঞ্চিত নারীর অর্থনৈতিক ও সামাজিক ক্ষমতায়নের জন্য আয় ও কর্মসংস্থান কর্মসূচি হাতে নেয়া হয়েছে। এর ফলে গ্রামীণ অঞ্চলের নারীদের জীবনমান উন্নয়নের মাধ্যমে তারা অর্থনৈতিক ভাবে স্বাবলম্বী হতে পারবে। সুনামগঞ্জ, হবিগঞ্জ, বি-বাড়ীয়া, কিশোরগঞ্জ ও নেত্রকোনা জেলার হাওড় অধ্যুষিত এলাকায় আগাম বন্যার ফলে উৎপাদিত ফসলের ব্যাপক ক্ষয় ক্ষতি হয় এবং এই এলাকার মানুষ কর্মহীন হয়ে পড়ে। বন্যার হাত থেকে মুক্ত করে উক্ত এলাকার পিছিয়ে পড়া নারীদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে আয় ও কর্মসংস্থান করা হবে। 
উল্লেখ্য, এই প্রকল্পটি ৪টি জেলার মোট ২৮টি উপজেলায় বাস্তবায়িত হবে। প্রকল্পটির ব্যয় ধরা হয়েছে ৬ কোটি ২৩ লাখ টাকা। এর মেয়াদকাল হবে জুলাই ২০১৮ হতে জুন ২০২০ সাল পর্যন্ত। 
#
খায়ের/মাহমুদ/রফিকুল/জয়নুল/২০১৮/১৮২০ঘণ্টা 
তথ্যবিবরণী                                                                                          নম্বর : ৩০৬৬
 
জাতির উদ্দেশে সিইসি’র ভাষণ সন্ধ্যা ৭টায়
আগামীকাল নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা
 
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) :
প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নূরুল হুদা আগামীকাল ৮ নভেম্বর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ প্রদানের মাধ্যমে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করবেন। বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন আজ এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানিয়েছে।
প্রধান নির্বাচন কমিশনারের ভাষণ বাংলাদেশ টেলিভিশন এবং বাংলাদেশ বেতারে একযোগে প্রচারিত হবে। বেসরকারি টেলিভিশন এবং রেডিওসমূহ বাংলাদেশ টেলিভিশন থেকে ফিড নিয়ে ভাষণ প্রচার করতে পারবে। 
#
 
আসাদুজ্জামান/মাহমুদ/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৮/১৮০০ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                           নম্বর : ৩০৬৫
প্রবাসী কর্মীরাই বাংলাদেশের গোল্ডেনবয়
                 - নুরুল ইসলাম বিএসসি
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) : 
প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি বলেছেন, প্রবাসী কর্মীরাই বাংলাদেশের গোল্ডেনবয়। তিনি বলেন, বিদেশে অবস্থানরত ১ কোটি ২০ লাখ কর্মীর প্রেরিত রেমিটেন্সই বাংলাদেশের অর্থনীতির অন্যতম ভিত্তি। তিনি আরো বলেন, বিদেশের মাটিতে বাংলাদেশের কর্মীরা নানা প্রতিকূলতা জয় করে রেমিটেন্স প্রেরণের মাধ্যমে দেশকে সমৃদ্ধ করছে এবং সারাবিশ্বে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করছে। মন্ত্রী আজ ঢাকার মিরপুরে ‘ঢাকা টেকিনিক্যাল টিচার্স ট্রেনিং ইন্সটিটিউট’ এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনকালে প্রধান অতিথির বক্তৃতাকালে এসব কথা বলেন। 
মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ বিশ্বে সবচেয়ে বেশি কর্মী প্রেরণকারী দেশ। দিনে দিনে বিশ্বে বাংলাদেশের কর্মীদের চাহিদা বাড়ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, বর্তমানে জাপানে শিক্ষক, টেক্সটাইলে প্রশিক্ষিত লোক এবং মহিলাকর্মীদের ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। তিনি প্রবাসী কর্মীদের ব্যাংকিং চ্যানেলে টাকা পাঠানোর জন্য আহ্বান জানান। 
জনশক্তি, কর্মসংস্থান ও প্রশিক্ষণ ব্যুরোর মহাপরিচালক মো. সেলিম রেজার সভাপতিত্বে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব রৌনক জাহান, অতিরিক্ত সচিব (কর্মসংস্থান) 
ড. আহমদ মুনিরুছ সালেহীন, ইসলামিক ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের রিজিওনাল ম্যানেজার নাসিসাস সুলাইমান এবং প্রকল্প পরিচালক ড. প্রকৌশলী মোঃ সাকাওয়াৎ আলী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন। 
ভারপ্রাপ্ত সচিব রৌনক জাহান বলেন সুন্দর দেশের পরিকল্পনায় কারিগরি শিক্ষার অবদান অগ্রগণ্য। তিনি আরোও বলেন, বিদেশের মাটিতে কোন বাংলাদেশি কর্মীকে যেন কাজহীন না থাকতে হয় তার জন্য প্রশিক্ষণ আবশ্যক এবং কোটা দিয়ে প্রবাসীর সন্তানদের কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভর্তির ব্যবস্থা করা হবে। 
উল্লেখ্য, মন্ত্রী ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনশেষে বাংলাদেশ-কোরিয়া কারিগরি প্রশিক্ষণকেন্দ্রে ‘এলজি আরএসি ইনভার্টার ল্যাব’ উদ্বোধন করেন।
#
রাশেদুজ্জামান/অনসূয়া/রেজ্জাকুল/আসমা/২০১৮/১৫৪৫ ঘণ্টা  
তথ্যবিবরণী                                                                                           নম্বর : ৩০৬৪ 
আগামীকাল থেকে ঢাকা-বঙ্গবন্ধু সেতু (পূর্ব) এর মধ্যে ট্রেন চলাচল শুরু
ঢাকা, ২৩ কার্তিক (৭ নভেম্বর) : 
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী এবং টাঙ্গাইলবাসীর দীর্ঘদিনের দাবির প্রেক্ষিতে ঢাকা এবং বঙ্গবন্ধু সেতু (পূর্ব) রেলওয়ে স্টেশনের মধ্যে টাঙ্গাইল কমিউটার-১, ২ নামে একজোড়া ট্রেন আগামীকাল থেকে চলাচল শুরু করবে। আগামীকাল কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন থেকে উদ্বোধনের মাধ্যমে ট্রেনটির আনুষ্ঠানিক যাত্রা শুরু হবে।
ট্রেনটি ঢাকা থেকে ছেড়ে যাবে বিকাল ৫.২০ টায় এবং বঙ্গবন্ধু সেতু (পূর্বে) পৌঁছাবে রাত ৮.৩০ টায় এবং সেখান থেকে সকাল ৬ টায় ছেড়ে ঢাকায় পৌঁছাবে সকাল ৮.৫০ টায়। 
টাঙ্গাইল কমিউটার ট্রেনটি ১০টি কোচ দ্বারা চলাচল করবে। পূর্বে এই ট্রেনটি তুরাগ নামে ঢাকা-জয়দেবপুরের মধ্যে চলাচল করত।
#
শরিফুল/অনসূয়া/জসীম/রেজ্জাকুল/আসমা/২০১৮/১২৩০ ঘণ্টা 
Todays handout (5).docx Todays handout (5).docx

Share with :

Facebook Facebook